বিয়ে আমার কপালে নেই।

আজ চিত্রনায়িকা পপির জন্মদিন। জন্মদিনের প্রথম প্রহর থেকেই মুঠোফোনে শুভেচ্ছা বার্তা পাচ্ছেন। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকেও সহকর্মী, ভক্ত আর দর্শকদের শুভেচ্ছায় ভাসছেন তিনি। গতকাল রোববার দিবাগত রাতে সেসব নিয়ে কথা বলেছেন প্রথম আলোর সঙ্গে।

শুভ জন্মদিন।
ধন্যবাদ।

এবার জন্মদিনের শুরুটা কীভাবে উদ্‌যাপন করেছেন?
রাত ১২টা ১ মিনিটে সৃষ্টিকর্তাকে স্মরণ করেছি। তাঁর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছি। এরপর রাতে কেক কেটে পারিবারিকভাবে সবাই মিলে জন্মদিনের প্রথম প্রহর উদ্‌যাপন করেছি। রাত ১২টার পর বাসায় চারটি কেক কেটেছি। আমার ছোট বোন নিজ হাতে দুটি কেক তৈরি করেছিল।

আর কী পরিকল্পনা করেছেন?
সকালে আরটিভিতে আর দুপুর ১২টায় চ্যানেল আইতে সরাসরি অনুষ্ঠানে আমাকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। এই দুটি অনুষ্ঠানের মাধ্যমে আমার ভক্ত, শুভাকাঙ্ক্ষী আর দর্শকদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করব। তা ছাড়া প্রতিবছরের মতো এবারও দুস্থ ও এতিম বাচ্চাদের জন্য ঢাকায় এবং খুলনায় খাবারের আয়োজন করেছি।

পপিপপি
সহকর্মীদের মধ্যে কে কে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন?
রাতেই জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানাতে ফোন দিয়েছেন মৌসুমী, ওমর সানী, সাইমনসহ অনেকই। অনেকই আবার ফেসবুকে শুভকামনা জানিয়েছেন।

সামনে নতুন কোনো কাজের পরিকল্পনা করছেন?
চলচ্চিত্রে ভালো কিছু কাজ করতে চাই। শুধু জন্মদিনে নয়, বছরের সব সময়ই এমনটা চাওয়া।

আপনার সমসাময়িক অনেকই সংসারজীবন শুরু করেছেন। আপনি বিয়ে করছেন কবে?
বিয়ে বড় একটি সিদ্ধান্ত। আশপাশে এত এত বিবাহবিচ্ছেদের খবর পাচ্ছি। আর কিছু কাছের মানুষের বিবাহিত জীবনের অশান্তি দেখে দেখে এখন নিজেই বিয়ে করতে ভয় পাই। জীবনসঙ্গী হিসেবে একজন সঠিক মানুষের জন্য অপেক্ষা করছি। জীবনসঙ্গী হিসেবে একজন সৎ মানুষ খুব জরুরি।

এখন কী কাজ করছেন?
‘কাঠগড়ায় শরৎচন্দ্র’ ও ‘সাহসী যোদ্ধা’ নামে দুটি ছবির শুটিং চলছে। ‘যুদ্ধশিশু’, ‘টার্ন’—এই দুটি ছবির শুটিং শিগগিরই শুরু হওয়ার কথা আছে। এ ছাড়া ‘জীবনযন্ত্রণা’, ‘দুই ভাইয়ের যুদ্ধ’, ‘বিয়ে হলো বাসর হলো না’, ‘শর্টকাটে বড়লোক’ ও ‘মন খুঁজে বন্ধন’—এই ছবিগুলো মুক্তির অপেক্ষায় আছে।

পপিপপি
বিজ্ঞাপনচিত্রে কাজ করছেন না কেন?
বছর দুয়েক হলো কোনো বিজ্ঞাপনে কাজ করিনি। তবে দুটি বড় প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপনে কাজ করার ব্যাপারে আলোচনা হচ্ছে। আগামী দু-এক দিনের মধ্যেই চূড়ান্ত হবে।

আর ছোট পর্দার কাজ?
নিয়মিতভাবে ছোট পর্দায় কাজ করা হয়নি। তবে এখন ভাবছি ভালো চিত্রনাট্য যদি পেয়ে যাই আর ব্যাটে-বলে মিলে গেলে ঈদ কিংবা বিশেষ দিন ছাড়া বছরের অন্য সময়ও ছোট পর্দায় কাজ করব।

আপনি চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির কার্যনির্বাহী সদস্য। নির্বাচিত হওয়ার পর চলচ্চিত্রের জন্য কী কাজ করেছেন?
নির্বাচনের আগে যেসব কাজ করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলাম, তার মধ্যে অনেকগুলোই আমরা করেছি। আমাদের কমিটির মেয়াদ শেষ হতে এখনো প্রায় ছয় মাস বাকি আছে। আশা করছি, এ সময়ের মধ্যে বাকি প্রতিশ্রুতিগুলো বাস্তবায়ন করা সম্ভব হবে।

আগামী নির্বাচনে প্রার্থী হবেন?
অবশ্যই প্রার্থী হব। নির্বাচিত হয়ে চলচ্চিত্রের শিল্পীদের জন্য কাজ করতে চাই।

শেয়ার করুণঃ

shares