গাছ ফেলে সড়ক অবরোধ করে রেখেছে অটোরিকশা চালকরা।

নিরাপদ সড়ক চাই আন্দোলনের প্রভাব পড়েছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার নবিনগর উপজেলার বিদ্যাকুটে ইউনিয়নেও। কারণ এই আন্দোলনের ফলেই ট্রাফিক সপ্তাহ পালিত হচ্ছে সারাদেশে। সারাদেশের ন্যায় তা পালন করছে শিবপুর পুলিশ ফাঁড়িও। শিবপুর পুলিশ ফাঁড়ির উদ্যোগে ট্রাফিক সপ্তাহ উপলক্ষ্যে, বিদ্যাকুট, শিবপুর, বিটঘর ও নাটঘর ইউনিয়নের বিভিন্ন পয়েন্টে মোটরসাইকেল ও অটোরিকশার বৈধ কাগজপত্র এবং মোটরসাইকেল ড্রাইভারের ড্রাইভিং লাইসেন্স চেকসহ কোনো ড্রাইভার অপ্রাপ্তবয়স্ক কিনা তা চেক করে গত বুধবার।

এক অটো চালকের সাথে কথা বলে জানা যায়, কাগজপত্র ঠিক না থাকায় একাদিক মোটরসাইকেলসহ, ১০ টি অটোরিকশা আটক করে ফাঁড়িতে নিয়ে যায় পুলিশ। অন্যদিকে ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা ছেড়ে দেবার দাবিতে বুধবার রাত ৭ টায় বিদ্যাকুট বাজারে মিছিল করে অটোরিকশা চালকরা। চালকদের দাবি কাগজপত্রের অজুহাতে অটোরিকশা আটকে রাখা অযুক্তিক। তারা আরো জানায় ব্যাটারিচালিত অটোরিকশার কোনো লাইসেন্স সিস্টেম নেই, আর কেনার সময় সু-রুমের ক্যাশ মেমোর প্রয়োজন নেই মনে করে অনেকে তা ফেলে দিয়েছে। তাই আটক অটোগুলোকে ছেড়ে দেবার দাবিতে আজ (বৃহস্পতিবার) সকাল থেকে বিদ্যাকুট টু মেরকুটা, নাটঘর, শিবপুর, কুঁড়িঘর সড়কে গাছ ফেলে যান চলাচল বন্ধ করে রেখেছে অবরোধকারীরা। আটক ব্যাটারিচালিত অটোরিকশাগুলোকে ছেড়ে না দেয়া পর্যন্ত এই অবরোধ চলবে বলে জানিয়েছে অবরোধকারীরা।

শেয়ার করুণঃ

shares